শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ১০:৩৩ পূর্বাহ্ন
সদ্যপ্রাপ্ত খবর :
অটিস্টিক শিশুদের আবাসন ও কর্মসংস্থান করবে সরকার   ||   নারীর প্রতি যৌন ও পারিবারিক সহিংসতা ক্রমাগতই বাড়ছে   ||   শান্তিগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের নব-নির্বাচিত সভাপতি হলেন মৃত্যুঞ্জয়ী ছাত্রনেতা ছদরুল ইসলাম  ||

১৬ তে হয়নি, ২২-এ হবে তো?

ক্রীড়া প্রতিবেদক / ৩৩০ বার পঠিত:
আপডেট সময় : রবিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২২
১৬ তে হয়নি, ২২-এ হবে তো?

আফগানিস্তানের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ শুরুর আগে সতর্ক-সাবধানী বার্তা ছিল বাংলাদেশ অধিনায়ক তামিম ইকবালের কণ্ঠে। তরুণ অলরাউন্ডার মেহেদি হাসান মিরাজও চট্টগ্রামে আসার আগে বলেছিলেন, সিরিজ জেতা নিয়ে ভাবার আগে ম্যাচ বাই ম্যাচ এগুতে চান তারা। সে পরিকল্পনায় পুরোপুরি সফল বাংলাদেশ।

এরই মধ্যে প্রথম দুই ম্যাচ জিতে সিরিজ নিশ্চিত করে ফেলেছে টাইগাররা। সোমবার শেষ ম্যাচ জিতলেই প্রথমবারের মতো আফগানিস্তানকে হোয়াইটওয়াশ করার স্বাদ পাবে স্বাগতিক বাংলাদেশ দল। এছাড়া বিশ্বকাপ সুপার লিগে ১০ পয়েন্ট থাকায় এই ম্যাচটিকে একদমই হালকা করে নিচ্ছে না তামিমের দল।

২০১৬ সালেও ঘরের মাঠে আফগানিস্তানের বিপক্ষে সিরিজ জিতেছিল বাংলাদেশ। তবে সেবার হোয়াইটওয়াশ করা সম্ভব হয়নি। মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচ জিতে সমতা ফিরিয়েছিল আফগানরা। তবে শেষ ম্যাচ জিতে সিরিজের শিরোপা দেশের বাইরে যেতে দেয়নি বাংলাদেশ।

বছর ছয়েক আগে আফগানদের হোয়াইটওয়াশ করতে না পারার আক্ষেপ ঘোচানোর সুযোগ এবার রয়েছে বাংলাদেশের সামনে। শুধু চাই সিরিজের শেষ ম্যাচেও জয়। আর এই মিশনে অতীত পরিসংখ্যানও নিজেদের পক্ষেই পাচ্ছে টাইগাররা। এখন পর্যন্ত তিন ম্যাচের সিরিজে ১০ বার প্রতিপক্ষকে হোয়াইটওয়াশ করেছে বাংলাদেশ।

অর্থাৎ দুই ম্যাচ জিতে সিরিজ নিশ্চিত হওয়ার পর শেষ ম্যাচও জিতে নিয়েছে দশবার। বিপরীতে মাত্র দুইবার সিরিজ নিশ্চিত হওয়ার পর শেষ ম্যাচটি হেরেছে বাংলাদেশ। ২০১৫ সালে ভারত এবং গতবছর শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ২-০তে এগিয়ে যাওয়ার পর শেষ ম্যাচটি জেতা সম্ভব হয়নি টাইগারদের।

অতীত নিজেদের পক্ষে থাকলেও মাত্র এক বছর আগেই শেষ ম্যাচ হেরে হোয়াইটওয়াশ করতে না পারার অভিজ্ঞতা হয়েছে বাংলাদেশের। তবে এবার আফগানদের বিপক্ষে নামার আগে সেই সিরিজের কথা মাথায় রাখছে না টাইগাররা। বরং ইতিবাচক থেকে ১৬’তে না পারার আক্ষেপ ২২-এ মেটানোরই লক্ষ্য তাদের।

রোববার ম্যাচের আগেরদিন সংবাদ সম্মেলনে এ বিষয়ে মেহেদি হাসান মিরাজ বলেছেন, ‘(শ্রীলঙ্কার কাছে সিরিজের শেষ ম্যাচ হারের ব্যাপারে) কোনো কথা হয়নি। সেটা নেতিবাচক ভাবনা। নেতিবাচক চিন্তা করছি না, ইতিবাচক চিন্তা করছি। আমরা চেষ্টা করবো শতভাগ অ্যাফোর্ট দিয়ে খেলার জন্য এবং আমাদের জন্য ১০ পয়েন্ট খুব গুরুত্বপূর্ণ।’

উল্লেখ্য, চলতি সিরিজসহ সবমিলিয়ে ৭৮টি ওয়ানডে সিরিজ খেলেছে বাংলাদেশ দল। যার মধ্যে টাইগারদের জয় ২৯টি সিরিজে আর ড্র হয়েছে ৪টি। এর মধ্যে ১৫টি ওয়ানডে সিরিজে প্রতিপক্ষকে হোয়াইটওয়াশ করতে পেরেছে তারা। সোমবারের ম্যাচটি জিতলে প্রতিপক্ষকে ১৬তমবারের মতো হোয়াইটওয়াশ করার স্বাদ পাবে বাংলাদেশ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই রকম আরো সংবাদ