শুক্রবার, ২১ জুন ২০২৪, ০৮:১৮ পূর্বাহ্ন
সদ্যপ্রাপ্ত খবর :
অটিস্টিক শিশুদের আবাসন ও কর্মসংস্থান করবে সরকার   ||   নারীর প্রতি যৌন ও পারিবারিক সহিংসতা ক্রমাগতই বাড়ছে   ||   শান্তিগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের নব-নির্বাচিত সভাপতি হলেন মৃত্যুঞ্জয়ী ছাত্রনেতা ছদরুল ইসলাম  ||

শেষ ম্যাচেও অনিশ্চিত মুশফিক, শঙ্কা আছে বৃষ্টিরও

ডেস্ক / ৫৯২ বার পঠিত:
আপডেট সময় : বুধবার, ৩১ মার্চ, ২০২১
শেষ ম্যাচেও অনিশ্চিত মুশফিক, শঙ্কা আছে বৃষ্টিরও

ডাকওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে লক্ষ্য নির্ধারণ নিয়ে দোলাচালে থাকা ম্যাচে দুই তরুণ সৌম্য সরকার আর নাইম ইসলামের হাত ধরে কিছুটা পথ এগিয়েও শেষ পর্যন্ত না পারার আক্ষেপ। ঠিক যেন ক্রাইস্টচার্চে দ্বিতীয় ওয়ানডের মত অবস্থা। সেই ম্যাচেও টাইগারদের সম্ভাবনা ছিল জেতার। কিন্তু শেষ পর্যন্ত স্বপ্নপূরণ হয়নি। এবারও হলো না। এবারের নিউজিল্যান্ড সফরে এখন পর্যন্ত তিন ওয়ানডে আর দুই টি-টোয়েন্টি মিলে ৫ ম্যাচের মধ্যে ওই দুইবারই লড়াই করে হেরেছে বাংলাদেশ।তবে এখনও অধরা জয়ের দেখা মেলেনি।

নিউজিল্যান্ডের মাটিতে কিউইদের কোনো ফরম্যাটে হারানোর স্বপ্নটা এখনও স্বপ্ন হয়েই আছে। হাতে আর মাত্র একটি ম্যাচ। আগামীকাল (১ এপ্রিল) অকল্যান্ডে শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে সেই বহুল আকাঙ্খিত জয়ের দেখা মিলবে কি? আপাতত সেটাই লক্ষ্য রিয়াদ বাহিনীর। তাই মঙ্গলবারের ম্যাচ শেষে রাত আর সকাল পার করে বুধবারই অকল্যান্ড-যাত্রা। আজ স্থানীয় সময় বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে নেপিয়ার থেকে বিমানে অকল্যান্ড এসে পৌঁছেছে জাতীয় দলের বহর। বাংলাদেশ সময় সকাল পৌনে দশটায় জাগো নিউজের সাথে আলাপে সফরের টিম লিডার জালাল ইউনুস আর দলের অন্যতম নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমন জাতীয় দলের অকল্যান্ড পৌঁছানোর খবর নিশ্চিত করেন।

দুজনই মঙ্গলবারের ম্যাচ নিয়ে আফসোস করেন। তাদের মতে, একটা ভালো সুযোগ ছিল। জালাল ইউনুস বলেন, ‘মাঝে তিনটি ওভার একটু স্লো হয়ে যাওয়ায় ম্যাচ হাতছাড়া হয়েছে। না হয়, সম্ভাবনা ছিল বেশ।’ ক্রিকেটারদের চেষ্টা আর উদ্যমের প্রশংসা করে জালাল বলেন, ‘ছেলেরা প্রাণপন চেষ্টা করেছে। মাঠে তাদের শরীরি ভাষাও ছিল ভালো। এখন দেখা যাক, শেষ ম্যাচে কি হয়!’ কথা প্রসঙ্গে উঠলো মুশফিকুর রহীমের ব্যাপারটা। তবে কোনো আশার আলো মেলেনি। ১ এপ্রিল অকল্যান্ডে শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচেও মুশফিক খেলবেন কিনা, নিশ্চিত করে বলতে পারেননি জালাল ইউনুস ও হাবিবুল বাশার সুমনের কেউই।

নির্বাচক হাবিবুল বাশার বলেন, ‘আমরা শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত অপেক্ষা করে দেখি মুশফিক খেলতে পারে কি না। তাকে খেলার দিনও পরীক্ষা করা হয়। গতকালের ম্যাচের আগেও তাকে ফিজিও-ট্রেনারের সাথে মাঠে পাঠানো হয়েছিল। কিন্তু ব্যথা অনুভব করায় শেষ পর্যন্ত খেলতে পারেননি মুশফিক। বৃহস্পতিবারও তাকে একইভাবে খেলার আগে শেষবার পরীক্ষা করে দেখা হবে। ব্যথা অনুভব না করলে খেলবে মুশফিক। নাহলে না।’ এদিকে শুধু মুশফিকের খেলা নিয়ে অনিশ্চয়তাই নয়, কাল (বৃহস্পতিবার) অকল্যান্ডের ম্যাচে ফের বাধা হয়ে দাঁড়াতে পারে বৃষ্টি। জালাল ইউনুস জানালেন, অকল্যান্ডে আজ ৩১ মার্চের আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বিকেল ও রাতে ভারি বৃষ্টির কথা বলা আছে। তাই আরও একবার ডাকওয়ার্থ লুইসের দরকার পড়তে পারে। বৃষ্টিভাগ্যে ফের কপাল না পুড়লেই হয়!


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই রকম আরো সংবাদ